Sat. Apr 17th, 2021
Share
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

সত্যি হয়েছে গুঞ্জন। ক’রোনাভাইরাসের প্রভাবে পিছিয়ে দেওয়া হলো চলতি বছর অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠেয় টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। তাতে স্থগিত হয়ে থাকা ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ মাঠে সম্ভাবনা ঢের বেড়েছে বলে ভারতীয় সংবাদমাধ্যমে খবর।

আগামী ১৮ অক্টোবর থেকে ১৫ নভেম্বর পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ায় হওয়ার কথা ছিল টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সপ্তম আসর। আসরের এই সূচি এক বছর পিছিয়ে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ব ক্রিকেট নিয়ন্ত্রণ সংস্থা আইসিসি।

এই ঘোষণার পর উল্লসিত আইপিএল প্রেমীরা। কেননা এই উইন্ডোতে আইপিএল আয়োজনে কার্যত কোনো বাধা নেই। জানা গেছে, আইপিএল আয়োজনের পরবর্তী পদক্ষেপ হিসাবে বোর্ডের পক্ষ থেকে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কাছে আবেদন জানাবে। প্রটোকল অনুযায়ী, বোর্ডকে শুধু স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ই নয়, একই সঙ্গে ক্রীড়া মন্ত্রণালয়, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কেও জানাতে হবে।

তবে বর্তমান পরিস্থিতিতে ভারতের মাটিতে আইপিএল আয়োজনের কোনো সম্ভাবনাই নেই। কেননা দেশটিতে প্রতিদিনই ক’রোনাভাইরাসের সংক্রমণ বাড়ছে।

তবে বোর্ড কর্তারা মনে করছে, সংযুক্ত আরব আমিরাতের পরিস্থিতি অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে। সেখানে আয়োজন করা যেতে পারে। আগামী সপ্তাহেই এ ব্যাপারে বোর্ড কর্তাদের সঙ্গে বৈঠকে বসার কথা রয়েছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহর।

বোর্ডের এক কর্তা বলছেন, আরব আমিরাতে আইপিএল আয়োজনের অন্যতম কারণ হল-সেখানকার দুই বিমান সংস্থা এমিরেটস এবং এতিহাদ এয়ারলাইনস নিয়মিত বিমান পরিষেবা চালু করেছে। পাশাপাশি, অন্য দেশের মত ১৪ দিনের হোম কোয়ারেন্টাইন নীতিও বলবৎ নেই সেখানে।

এ ব্যাপারে বিসিসিআই ফ্র্যাঞ্চাইজিদের সঙ্গে যোগাযোগ করছে। কেকেআর, মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স, দিল্লি ক্যাপিটালস এবং রাজস্থান রয়্যালস বেশ কিছুদিন আগে থেকেই ইউএইতে খেলার পরিকল্পনা সেরে ফেলেছে বলে জানা গেছে।

তবে এখনো সবকিছু চূড়ান্ত হয়নি বলে জানালেন আইপিএল চেয়ারম্যান ব্রিজেশ প্যাটেল, “এক সপ্তাহের মধ্যেই আমরা গভর্নিং কাউন্সিলের বৈঠক আয়োজন করছি। সেখানেই দিনক্ষণ সংক্রান্ত যাবতীয় সূচি চূড়ান্ত করা হবে। আইপিএল আয়োজনের জন্য কেন্দ্রীয় সরকারের অনুমতি পেলেই ফ্র্যাঞ্চাইজিদের জানিয়ে দেওয়া হবে আনুষ্ঠানিকভাবে। ”

Leave a Reply