Fri. Apr 23rd, 2021
Share
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


আব্দুল মালেক, নীলফামারী প্রতিনিধিঃ

সন্ত্রাসী জুয়েল বাহিনীর প্রধান জুয়েলসহ আসামীদের গ্রেফতারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছে নীলফামারী সদর উপজেলার বাবরিঝাড় এলাকার হাজি সোহরাবের ছেলে মশিয়ার রহমান।

আজ সোমবার দুপুরে তার নিজ বাড়িতে পরিবারের লোকজনদের নিয়ে সংবাদ করেন তিনি।
সংবাদ সম্মেলনে মশিয়ার রহমান জানান, পূবের শত্রুতার জের ধরে তার প্যান্টের পকেটে থাকা ২ লক্ষ টাকা ও হাতে থাকা একটি স্যামস্যাং স্মার্ট ফোন ছিনিয়ে নেয়, যার মূল্য ২০হাজার টাকা। তিনি বলেন, গত ১৪ নভেম্বর রাত ০৮টায় পার্শবর্তী সৈয়দপুর উপজেলায় বসবাসরত বড় ভাইয়ের বাসা থেকে বাড়িতে আসেন, পথিমধ্যে সন্ত্রসী বাহিনীর প্রধান জুয়েল ডেকে নেয় বাবরিঝাড় হাইস্কুল মাঠে। সেখানে ওৎপেতে থাকা ১৫/২০ জন লোক তাকে ঘিরে ফেলে এবং কিলঘুষি ও দেশীয় অস্ত্র দ্বারা মারপিট রক্তাক্ত জখম অবস্থায় জ্ঞান হারিয়ে ফেলি। এই সুযোগে আমার কাছে থাকা টাকা ও মোবাইল ফোনটি ছিনিয়ে নেয়। স্থানী লোকজন এগিয়ে আসলে জুয়েলসহ তার সন্ত্রাসী বাহিনী পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন আমাকে উদ্ধার করে আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করায়। আমার অবস্থা বে-গতিক হলে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফাড করায়। কিছুদিন চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হই এবং সদর থানায় ১৪জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করি। মশিয়ার রহমান সাংবাদিকদের জানায়, মামলা করার পর আসমীরা বাড়িতে এসে বিভিন্নভাবে ভয়ভীতি ও প্রাণনাশের হুমকী-ধামকী দিয়ে আসছে। তাই সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে আসামীদের দ্রুত গ্রেফতারের দাবি জানাচ্ছি।
এসময় মশিয়ার রহমানের বাবা হাজি সোহরাব হোসেনসহ পরিবারের লোকজন ও স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply