কবিতা “পল্লী মায়ের প্রতি”- আকাশ রায়

Share
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

“পল্লী মায়ের প্রতি”

আকাশ রায়

আমার প্রাণের আশ-

যেন বসতে পারি পল্লী মায়ের কোলে

অতীত ফেলিয়া আমার যেন-

ঠাঁই হয় তাহারি ক্রোড়ে।

এতকাল ছিলাম বটে গোঁয়ার গোবিন্দ-

তাই বুঝি মা কোলে নিতে করেছিলেন সন্ধ।

আমার নেত্রলোচনে আজি দেখি-

এই মাতৃবদনের রাঙ্গানো সুখের হাসি।

মাতা আমি ভুলিব না তোমায়-

অতীত ভুলিয়া ঠাঁই দিও মোরে হ্রদয়ের অন্তরায়।

মাগো, যেন প্রকৃতিতে আজ-

পুষ্পবৃক্ষগুলি ভ্রাতা বলিয়া ডাকে,

যেন এই পক্ষীকূল সখার নেত্রে দেখে।

ফলোবৃক্ষরাজি যেন আমায় দেখিয়া হাসে-

আমি যেন খেতে পারি দোল তাদের ডগায় বসে।

শস্য-ক্ষেতের মাতাল হাওয়ায় একটু-খানি চেয়ে-

ওগো জননী,তুমি আমায় দিও দ্যাখা সোনালী আঁশ মেখে।

রোদ্রে তুমি ছায়ারুপী-

বৃষ্টিতে বটতলা,বসন্তে বহুশোভা তোমার-

পুষ্পে কানন ভরা।

সর্বরুপী মাতৃ তুমি, সর্বজনীন আশ্রয়-

মাগো, তুমি করিও না মোরে

তোমার স্নেহ হইতে অসহায়।

ওগো জননী,আমার আশ ইহাই-

এই নরাধমকে তোমার হ্রদয়ে দিও ঠাঁই।

Leave a Reply