হোয়াইটওয়াশ করতে হলে বাংলাদেশের প্রয়োজন’ ২৮৭ রান

Share
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ডেস্ক রিপোর্ট: সিরিজ হেরেছে আগেই, এখন হোয়াইটওয়াশের লজ্জার মুখে লঙ্কানরা। এমন পরিস্থিতিতে যেকোনো মূল্যে ঘুরে দাঁড়াতে হতো সফরকারীদের। সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচে এসে ঘুরে দাঁড়ানোর ইঙ্গিতই দিয়ে রেখেছেন কুশল পেরেরারা। নির্ধারিত ওভারে ছয় উইকেটে ২৮৬ রান তুলেছে তারা। জিততে হলে টাইগারদের প্রয়োজন ২৮৭ রান।,


আজ শুক্রবার মিরপুর শের-ই বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে টসে জিতে ব্যাট করতে আসেন দুই উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান কুশল পেরেরা ও দানুশকা গুনাথিকালাকা। শরিফুলের প্রথম বলেই বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ঝড়ো শুরু করেন পেরেরা। এরপর দুই ওপেনারের ব্যাটে ৭ ওভার চার বলে দলীয় অর্ধশতকপূর্ণ হয়। দ্রুত রান তুলতে থাকা এই জুটি ভাঙেন তাসকিন আহমেদ।’


১২তম ওভারে বল করতে এসে দ্বিতীয় বলেই বিধ্বংসী গুনাথিকালাকে সাজঘরে ফেরান তিনি। তাসকিনের বলে বোল্ড হয়ে ফেরার আগে ৩৩ বলে ৩৯ রান করেন তিনি। একই ওভারের চতুর্থ শেষ বলে নতুন ব্যাটসম্যান পাথুম নিশাঙ্কাকে সাজঘরে ফেরান এই পেসার। রানের খাতা খেলার আগেই উইকেটের পেছনে থাকা মুশফিকুর রহিমের গ্লাভসবন্দি হন তিনি।’


চারে এসে পেরেরাকে দারুণ সঙ্গ দেন কুশল মেন্ডিস। তাকে নিয়েই ৪৪ বলে ব্যক্তিগত অর্ধশতক তুলে নেন পেরেরা। পুরো সিরিজে এটি লঙ্কানদের প্রথম অর্ধশতক। দুই উইকেট হারানেরা ধাক্কা দারুণভাবেই কাটিয়ে উঠে এই যুগল। ২৫তম ওভারের শেষ বলে ম্যাচে ফিরতে পারতো স্বাগতিকরা। ১৪৯ রানের মাথায় সাকিব করা বল খেলতে গিয়ে মিডঅনে ক্যাচ তোলেন বিধ্বংসী হয়ে উঠা পেরেরা। দূর থেকে দৌড়ে গিয়ে ক্যাচটি মাটিতে ফেলেন আফিফ হোসেন। এতে জীবন পায় সেঞ্চুরির দিকে এগোতে থাকা লঙ্কান অধিনায়ক।,


২৬তম ওভারের উইকেটে থিতু হয়ে বসা কুশল মেন্ডিসকে তামিমের তালুবন্দি করেন তাসকিন। এই পেসারের তৃতীয় শিকার হয়ে ফেরার আগে ৩৬ বলে ২২ রান করেন তিনি। ৭৯ রানে আফিফের হাতে এবং ৯৯ রানে মাহমুদউল্লাহর হাতে জীবন পেয়েই সেঞ্চুরি তুলে নেন পেরেরা। এটি তার ব্যক্তিগত ষষ্ঠ সেঞ্চুরি।


বিধ্বংসী হয়ে উঠা এই ওপেনারকে ফেরাতে বেশ বেগ পেতে হয়েছে স্বাগতিক বোলারদের। দলীয় ২১৬ রানের মাথায় তাকে ফেরান পেসার শরিফুল ইসলাম। ১১২ বলে ১১ চার ও এক ছক্কায় ১২০ রান করা পেরেরা মিডঅফে মাহমুদউল্লাহর তালুবন্দি হন। খানিক পরই শরিফুলের সরাসরি থ্রোতে রানআউট হয়ে সাজঘরে ফেরেন ৭ রান করা নিরোশান ডিকভেলা।


৪৮.২ ওভারের দ্বিতীয় বলে ভানিন্দু হাসারাঙ্গাকে নিজের চতুর্থ শিকার বানান তাসকিন। লং অনে মেহেদি হাসান মিরাজের তালুবন্দী হয়ে ফেরার আগে ২১ বলে ১৮ রান তোলেন তিনি।-দেশবানী

Leave a Reply