জয়পুরহাটে বেড়েই চলেছে করোনা রোগী

Share
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

জয়পুরহাট প্রতিনিধি:

সীমান্ত ঘেঁষা জয়পুরহাট জেলায় দিন দিন করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বেড়েই চলেছে। তারপরেও সাধারণ মানুষের মধ্যে বিধিনিষেধ ও স্বাস্থ্যবিধি মানার কোন প্রবণতা চোখে পড়েনা। জেলায় একদিনে সর্বোচ্চ ৫১ জনের শরীরে করোনা ভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া গেছে। এ নিয়ে জেলায় ৫ দিনে করোনায় আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ১৩২ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১ জনের।’

বুধবার রাতে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজের ল্যাবরেটরি (পিসিআর) থেকে পাঠানো রিপোর্টে ৭১ জনের নমুনা পরীক্ষায় ২০ জন ও জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ৮৯ জনের এন্টিজেন পরীক্ষায় ৩১ জনের শরীরে করোনাভাইরাস সনাক্ত হয়েছে।’

জয়পুরহাট সিভিল সার্জন অফিসের সিনিয়র মেডিকেল টেকনোলজিষ্ট শ্যামল কুমার জানান, জয়পুরহাটে এ পর্যন্ত ১৫,৪৫৪ জনের নমুনা পরীক্ষায় ১,৭৮২ জনের করোনা সনাক্ত হয়েছে। মৃত্যু হয়েছে ১২ জনের। সুস্থ হয়েছেন ১,৬৪৩ জন, বর্তমানে হোম কোয়ারেন্টিনে আছেন ১৭৯ জন।

জয়পুরহাট জেলা প্রশাসক শরিফুল ইসলাম বলেন, করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে শতভাগ মাস্ক ব্যবহার নিশ্চিতকরণ এবং সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণের জনসাধারনকে চলাফেরার পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। প্রয়োজনে আইনগত ব্যবস্থাও নেওয়া হবে। জেলায় হাসপাতাল ক্লিনিক যা আছে তাতে পর্যাপ্ত ব্যবস্থা নেই। তাই সবার প্রতি ডিসি মহদোয় অনুরোধ করেন স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলুন। করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে ইতিমধ্যেই রাত ৮টা থেকে সকাল ৮টা পর্যন্ত খাবার ও ঔষধের দোকান বাদে সকল দোকান-পাঠ বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply