“সাধু” হয়ে দেড় বছর ধরে মন্দিরে ধর্ষণের আসামি | Deshbani

Share
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ডেস্ক রিপোর্ট: ধর্ষণের মামলার আসামি হওয়ার পর দেড় বছরের বেশি সময় ধরে নিজেকে ‘সাধু’ হিসেবে পরিচয় দিয়ে মন্দিরে আশ্রয় নিয়ে ছিলেন তিনি। অব’শেষে হাতে পড়েছে হাতকড়া।’

ভারতের উত্তর’প্রদেশের চান্দৌলি জেলার এক মন্দির থেকে সম্প্রতি ৫০ বছর বয়সী ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে আনন্দ’বাজার পত্রিকা।”

নাবালিকা ধর্ষণে অভিযুক্ত সত্যেন্দ্র শুক্ল মধ্য’প্রদেশের সভাপুর থানার একটি গ্রামের বাসিন্দা।

২০১৯ সালের মার্চে তার বিরুদ্ধে এক নাবালিকাকে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে। তার পর থেকেই তিনি নিখোঁজ।

সভাপুর থানার পুলিশ জানিয়েছে, কালোজাদুর মাধ্যমে সমস্যা সমা’ধানের করবে বলে সেই নাবালিকাকে ধর্ষণ করেছিল ওই ব্যক্তি। মামলা হয়েছিল। কিন্তু অভি’যুক্তকে গ্রেপ্তার করা যায়নি।’

সাভাপুর থানার দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এসপিএস চান্ডেল বলেছেন, অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করতে না পেরে ৫০ হাজার টাকা পুরস্কার ঘোষণা করা হয়েছিল।’

অনেক জায়গায় তল্লাশি চালিয়েও আমরা তার খোঁজ পাইনি। অবশেষে চান্দৌলি জেলার একটি মন্দির থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।-দেশবানী নিউজ

Leave a Reply